বুধবার, ১২ মে, ২০১০

বিশিষ্টজন ~ অনামিকা

ওঁরা সবাই "বিশিষ্টজন", ইচ্ছে মতন জবাই
করতে পারেন। হুকুম দিলেই মান্য করিস সবাই!
পদ্য লেখেন, নাটক করেন, ওঁরা আঁকেন ছবি।
শবসাধনাও করেন, আছে দুরন্ত ভৈরবী।
চাইলে পরেই ভৈরবী দেয় মৃতদেহের জোগান।
বুদ্ধিবেচা তান্ত্রিকেরা, এ বাংলাকে ভোগান!
মোদীর চেলা হাফ নকশাল, এদের অধিকাংশ
কারণবারির সঙ্গে চিবোয় টাটকা মানুষ-মাংস।
আবার যখন উঠল বেজে নির্বাচনের বাদ্য,
"বিশিষ্টজন" মঞ্চে নামেন যার যে রকম সাধ্য!
একাংশ খুব নাড়ান দাড়ি, করেন হুকুমজারি।
গাঁ'য় মানে না, মোড়ল সাজার সংস্কৃতি-সর্দারি।
অন্যগুলো মুখোসপড়া, বলেন মাথা চুলকে...
লাভের নিমক খেলাম ... তোরা জেতাস তৃণমূলকে!
চেঁচায় নানান রেলকমিটি, চেঁচায় কচিনেতাও ...
অর্ধলক্ষ মাস মাইনে, ভৈরবীকে জেতাও!
আখের গোছায় বিশিষ্টজন। কিন্তু এতক্ষণ যে
অপেক্ষাতে ক্লান্ত বেকার, শহর গ্রামে গঞ্জে ...
হতাশ হয়ে চাইছে হিসেব ... "করলে ন্যানো গায়েব
শিলান্যাসের চাকরি কোথায় বাবু বিবি সায়েব?
আমরা সবাই রাখছি খেয়াল, সমস্ত আর্টস একর।
একসঙ্গেই উপড়ে ফেলব আগাছা আর শেকড়!"